জেডটিই এবং বাংলালিংক নিয়ে এলো বিশ্বের সবচেয়ে বড় ভার্চুয়াল এসডিএম

মোবাইল ইন্টারনেটের প্রযুক্তি, এন্টারপ্রাইজ এবং টেলিকমিউনিকেশন সেবা দানকারী একটি বৃহৎ আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠান জেডটিই কর্পোরেশন এবং দেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় ডিজিটাল কমিউনিকেশন সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান বাংলালিংক, বাংলাদেশে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ভার্চুয়াল এসডিএম (সাবস্ক্রাইবার ডাটা বেসড ম্যানেজমেন্ট) প্লাটফর্মের  মাধ্যমে ৬০ মিলিয়ন গ্রাহকের মাইগ্রেশনের সফলতার ঘোষণা দিয়েছে আজ। এই রূপান্তর বাংলাদেশের ডিজিটাল অগ্রযাত্রায় একটি গুরুত্বপূর্ণ মাইলফলক তৈরি করেছে। এই ভার্চুয়াল এসডিএম বর্তমানে বিশ্বের সর্ববৃহৎ ভিএসডিএম প্লাটফর্ম। এটি বাংলালিংকের মূল কোম্পানি ভিয়নকে দক্ষ ডাটা ম্যানেজমেন্ট অর্জনে ও সেবার প্রাপ্যতা নিশ্চিত করতে সহায়তা করবে।

ভার্চুয়াল এসডিএম প্লাটফর্মের উন্নত ভার্চুয়ালাইজেশন প্রযুক্তির মাধ্যমে হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যারকে আলাদা করতে সাহায্য করে এবং ব্যবস্থাপনা ও পরিচালন খরচ কমানো, ফাইভজি ও আইওটি-এর মতো সেবা এবং নেটওয়ার্কের ধারাবাহিক পরিবর্তন মোকাবেলা করা, সহনীয় ও সহজ পদ্ধতিতে চাহিদা পূরণের জন্য বাণিজ্যিক অব-দ্যা-শেলফ (সিওটিএস) হার্ডওয়্যার ব্যবহার করে। মাল্টি-নেটওয়ার্ক ও উচ্চ ক্ষমতার চাহিদা পূরণের জন্য এটি উচ্চ ধারণক্ষমতা সম্পন্ন মাল্টি-এনই ডাটাবেইস সমাধান ব্যবহার করে। এই অনলাইন প্রযুক্তিটি উচ্চগতির গ্রাহক সেবা নিয়ে আসবে এবং গ্রাহকরা এই ডিজিটাল পরিবর্তনের সুফল পাবে। বাংলালিংকের ৬০ মিলিয়ন গ্রাহক এই নেটওয়ার্ক ভার্চুয়ালাইজেশনের সুবিধা ভোগ করবে।

বাংলালিংকের সিইও এরিক অস বলেন, “বাংলালিংক সত্যিকার অর্থে একটি সর্বব্যাপী ডিজিটাল সমাজ গঠনের চেষ্টা করে আসছে এবং এই লক্ষ্যে আমাদের সহযোগী প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানের সহায়তায় ভার্চুয়াল এসডিএম প্লাটফর্মের সফল বাণিজ্যিকীকরণের মাধ্যমে আমরা একধাপ এগিয়ে গেলাম। এ দুটি প্রতিষ্ঠানের টিমওয়ার্ক ছিল অসাধারণ, যা গ্রাহককে শ্রেষ্ঠ নেটওয়ার্ক অভিজ্ঞতা অর্জনের দিতে আমাদেরকে সহযোগিতা করবে। বিশ্বের সর্ববৃহৎ অনলাইন ভিএসডিএম প্লাটফর্মের বাস্তবায়ন উভয় প্রতিষ্ঠানের জন্য একটি দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে এবং বাংলাদেশে শ্রেষ্ঠ ডিজিটাল সেবাদাতা হওয়ার জন্য বাংলালিংককে সবসময় নতুন প্রযুক্তি নিয়ে আসতে সহযোগিতা করবে।”

জেডটিই বাংলাদেশের সিইও ভিনসেন্ট লিউ বলেন, “জেডটিইর পক্ষ থেকে, বাংলালিংক ভিয়নের সাথে এসডিএম (সাবস্ক্রাইবার ডাটা বেসড ম্যানেজমেন্ট) প্লাটফর্মের আনুষ্ঠানিক বাণিজ্যিকীকরণের ঘোষণায় উপস্থিত থাকতে পেরে আমি সম্মানিত বোধ করছি। স্ট্যাটেজিক পার্টনার হিসেবে, ভিয়নের ব্যবসায়িক সফলতার ধারাবাহিকিতা অর্জনের জন্য আমরা শ্রেষ্ঠ সেবা ও সমাধান প্রদানের অঙ্গীকারের ধারাবাহিকতা বজায় রাখব।”

জেডটিই উদ্ভাবনী প্রযুক্তি এবং ভার্চুয়াল সলিউশনের মাধ্যমে সক্রিয়ভাবে উনয়নের ধারা বজায় রেখে ইন্ডাস্ট্রি চেইনের উন্নতিতে অবদান রাখছে যা টেলিকম অপারেটরদের ৫জি ও আইওটি সম্পৃক্ত চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সহায়তা করে। জেডটিই ভার্চুয়ালাইজেশন কমার্শিয়াল ডেপ্লয়মেন্টের ক্ষেত্রে তাদের নেতৃত্ব ও অভিজ্ঞতার স্বীকৃতি স্বরূপ  ২০১৬ সালে বিশ্বব্যাপী মোবাইল অপারেটরদের ৪০ টির ও অধিক ভার্চুয়াল নেটওয়ার্ক প্রস্তুত করে দেয়। জেডটিই এবং বাংলালিংক তাদের ব্যবসায়িক সম্পর্ক উন্নয়নে কাজ করে যাবে। জেডটিই শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তির মাধ্যমে বাংলালিংকের ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন এবং গ্রাহক সুবিধার উন্নয়নে কাজ করে যাবে।

প্রযুক্তিকথন/ডেস্ক/

Related posts

Leave a Comment