ভ্রমণের বিশ্বস্ত প্রযুক্তি সঙ্গী

ভ্রমণে যেতে চাচ্ছেন ?সঙ্গে কি এমন সঙ্গীর কথা ভাবছেন যা আপনাকে ভ্রমণকালে নির্ভরতা দেবে?এখন প্রযুক্তি আপনাকে সে নির্ভরতা দিতে পারে। আপনার হাতের স্মার্টফোন, ট্যাব কিংবা হালকা-পাতলা ল্যাপটপ এখন বিশ্বস্ত সঙ্গীর মতো দরকারি চাহিদা মেটাতে পারে।অনলাইন দুনিয়ায় অনেক সেবা আছে যা আপনার কঠিন ও জটিল কাজকে সহজ করে তুলতে পারে। জোভাগোর কথাই ভাবুন। অনলাইন হোটেল বুকিং প্ল্যাটফর্ম জোভাগো আপনাকে সহজে হোটেল সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য দেবে।আপনি ঘরে বসে সহজেই হোটেল বুকিং করে ফেলতে পারবেন।

দেখে নিতে পারবেন আপনার ভ্রমণকালে থাকার জায়গা, পরিবেশ।আপনার স্মার্টফোন কিংবা ট্যাব থেকেও সহজে এ সেবা পাবেন। সেবার দিক থেকে জোভাগো আপনাকে সন্তুষ্ট করবে।আপনার বিশ্বস্ত সঙ্গী অনায়াসে ভাবতে পারবেন জোভাগোকে।জোভাগোর আছে বিশেষ কিছু ফিচার যা একে বিশ্বস্ত সঙ্গী হিসেবে মর্যাদা দিয়েছে।এতে আছে বাংলাদেশের প্রায় সব হোটেলের তথ্য।হোটেল বুকিংয়ের এই প্লাটফর্মের মাত্র এক ক্লিকে দেশজুড়ে পরচিতি সব হোটেল ও রিসোর্ট বুক করা যাবে। অ্যানড্রয়েড ও আইওএস উভয় প্লাটফর্মের ব্যবহারকারীরা জোভাগো অ্যাপ ব্যবহার করতে পারবেন। অ্যাপে গিয়ে শুধুমাত্র গন্তব্য ঠিক করে দিতে হবে। এর পর স্বয়ংক্রিয়ভাবে ওই এলাকার বিভিন্ন হোটেলের খালি রুমের তালিকা ও রুমের ভাড়াসহ বিস্তারিত তথ্য স্মার্টফোনের দেখা যাবে। সেই সঙ্গে চাইলে রুমের ভেতরের উচ্চ রেজুলেশনের ছবিও দেখা যাবে।

এর ফলে গ্রাহকরা জানতে পারবেন তারা কিসের জন্য টাকা খরচ করছেন।এর পর স্মার্টফোনের পর্দায় এক ছোঁয়াতেই বুক করে নেওয়া যাবে কাঙ্ক্ষিত হোটেল রুম। নির্বিঘ্নে হোটেলে পৌঁছাতে সহায়তা করবে একটি ইন্টারঅ্যাকটিভ ম্যাপ। প্রয়োজনে অ্যাপ থেকেই জোভাগোর ট্রাভেল অ্যাডভাইজারের সঙ্গেও কথা বলা যাবে। আগে থেকেই হোটেল বুক করা না থাকলেও সমাধান রয়েছে অ্যাপটিতে। এর “হোটেলস নিয়ার মি” ফিচার দিয়ে শেষ মুহূর্তেও ফাইভ স্টার হোটেল থেকে শুরু করে সস্তা গেস্ট হাউজ সবই বুক করা যাবে। শুধু তাই নয়, জোভাগোতে প্রায় সময় কোনো না কোনো অফার চালু থাকে। ফলে হোটেল বুকিংয়ে ছাড়টাও পেয়ে যেতে পারেন।  একজন বিশ্বস্ত প্রযুক্তি সঙ্গীর কাছে আর কি চাই?

জোভাগোর কান্ট্রি ম্যানেজার মেহরাজ মুয়ীদ বলেন, এখন জোভাগো আপনার জন্য এমন একটি সেবা যা সবসময়ের উপযোগী। ব্যবসায়ী বলেন আর সাধারণ পর্যটক, সবসময় ভ্রমণ করতে হয়।হাতের কাছে জোভাগোর চেয়ে বিশ্বস্ত, দ্রুতগতির সেবা আর কি হবে?আমরা জোভাগোর মাধ্যমে মানুষের আরও কাছে যাওয়ার চেষ্টা করছি।

প্রযুক্তিকথন/ডেস্ক/

Related posts

Leave a Comment