বেসিস উন্নয়নে দিদারের যে ৬ অঙ্গীকার

বেসিস নির্বাচনে শুটিং স্টার লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক দিদারুল আলম এবারের প্রার্থী। তিনি বেসিসের ডিজিটাল মার্কেটিং স্ট্যান্ডিং কমিটির কো-চেয়ারম্যান হিসেবে সর্বাধিক মিটিং করেছেন এবং ডিজিটাল মিডিয়া বায়িংয়ের পলিসি উন্নয়নে কাজ করছেন। এ ছাড়া অ্যাপিটকা অ্যাওয়ার্ড অর্গানাইজিং এবং সফট এক্সপো অর্গানাইজিং কমিটিতেও কাজ করেছেন। তিনি বিশ্বাস করেন সম্মিলিত শক্তিতেই বেসিসকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব। পুরনো ও নতুদের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে আমরা মেম্বারদের উন্নয়নের হাত ধরেই বেসিসের উন্নয়ন করতে চাই।

নির্বাচন সম্পর্কে দিদারুল আলম বলেন, নির্বাচনে বিজয়ী হলে কিছু বিষয় নিয়ে গুরুত্বসহকারে কাজ করতে চাই। সব মেম্বারের সঙ্গে মিলে সবার বেসিস করতে চান তিনি। এর আগে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে চার দিনব্যাপী আয়োজিত ‘বেসিস সফটএক্সপো ২০১৮’ দিদারুল আলম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। তিনি এবারের সফটএক্সপোয় খুব অল্প সময়ের মধ্যে বেসিসকে সিংহভাগ স্পন্সর এনে দেন।

বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেসের (বেসিস) নির্বাহী কমিটির ২০১৮-২০২০ মেয়াদের নির্বাচনে ‘টিম হরাইজন’ প্যানেল থেকে অংশ নিয়েছেন তরুণ এই উদ্যোক্তা। সম্প্রতি বেসিস নির্বাচনকে ঘিরে ৬টি প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন স্যুটিং স্টারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক দিদারুল আলম।

বেসিসের নির্বাচন ২০১৮-২০২০ কে ঘিরে দিদারুল আলমের দেওয়া প্রতিশ্রুতিগুলো নিম্নে তুলে ধরা হল :

(১) একটি গ্রোথ ক্লাব তৈরি করব যেখান থেকে ফাইন্যান্স ও নলেজ বেস সাহায্য সহযোগিতা পাবে।

(২) ক্যাটাগরি ভিত্তিক স্থানীয় সফ্টওয়্যার উপর ক্যাশ ইনসেনটিভ নিশ্চিতকরণ করব।

(৩) দীঘ মেয়াদি টেকসই বৃদ্ধির জন্য আইটি এইচআর পুল তৈরি করব।

(৪) আইন ও উন্নয়ন সম্পর্কিত সহায়তা নিশ্চিত করার জন্য “এক কল ভিত্তিক” সাপোর্ট নিশ্চিত করব।

(৫) একটি ‘‘লাইভ ড্যাশ বোর্ড’’ এর মাধ্যমে সরকারী ও বেসরকারী কাজের তথ্য নিশ্চিত করতে সুযোগ তৈরি করব এবং সম্ভাব্য সংযোগ স্থাপন করব।

(৬) মার্কেট ট্রেজিটি জানার জন্য এনআরবিগুলির সাথে অংশীদার ভিত্তিতে কাজ করব।

প্রযুক্তিকথন//ডেস্ক/